মঙ্গলবার, ২৫ Jun ২০১৯ | ১১ আষাঢ় ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

First Youth News Portal in Bangladesh

add 468*60

শিরোনাম

বিশ্ব উদ্যোক্তা সম্মেলনে বাংলাদেশের ৬ তরুণ খেলাধুলায় এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশের নারী ঢাকায় কমিউনিকেশন ফর ক্যারিয়ার শীর্ষক কর্মশালা ৪ মে বানানভীতি রোধে প্রসঙ্গ ব্যাবহারিক বাংলা রক্তে লেখা বাংলা ইসলামী আদর্শ ও মূল্যবোধ প্রতিষ্ঠায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান শীর্ষক বইয়ের আত্মপ্রকাশ একজন মানবসম্পদ কর্মী হওয়ার প্রাথমিক পাঠ কলাগাছিয়া ইকোট্যুরিজমে রহস্যময় সুন্দরবনের সৌন্দর্য কলাগাছিয়া ইকোট্যুরিজমে রহস্যময় সুন্দরবনের সৌন্দর্য স্বপ্ন জয়ের স্বপ্নযাত্রা ভিন্নদৃষ্টির বিজয় র‍্যালি আন্তর্জাতিক রোবট অলিম্পিয়াডে বাংলাদেশের স্বর্ণ জয় তরুণ প্রজন্মের উদ্যোক্তা হওয়ার বাধা জুনিয়র সায়েন্স অলিম্পিয়াডে বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের সাফল্য সেন্ট মার্টিন্স দ্বীপে রাত্রিযাপন নিষিদ্ধ হচ্ছে না

সঙ্গী যখন আইএসআইসি কার্ড

জেড হোসেন 

বহু প্রতীক্ষার পর এবার ১২ বছর-উর্ধ্ব বাংলাদেশি শিক্ষার্থীরার পেতে যাচ্ছে আইএসআইসি কার্ড। শিক্ষার্থীদের যেসব জায়গায় প্রয়োজনে যেতে হয় এর প্রায় সব পর্বে আকর্ষণীয় সুবিধা পাবে এই কার্ডধারীরা। এক কথায়, প্রকৃত শিক্ষার্থীরা আইএসআইসি কার্ডটি তাদের পাসপোর্ট হিসেবে ব্যবহার করতে পারবে; যা তার ছাত্রত্বের আন্তর্জাতিকভাবে গ্রহণযোগ্য প্রমাণপত্র হিসেবে কাজ করবে। শিক্ষার্থীদের জন্য এই কার্ড ১৯৬৮ সালে ইউনেস্কো সমর্থন লাভ করে। বর্তমানে এই কার্ডধারীরা স্টাডি, এন্টারটেইনমেন্ট, ফুড, কালচার, স্পোর্টস, শপিং অ্যান্ড ট্রাভেলিংসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বিশেষ সুবিধা বা ছাড় পাচ্ছে। 

আন্তর্জাতিকভাবে ছাত্রত্ব প্রমাণে ১৯৫৩ সালে কোঅর্ডিনেটিং সেক্রেটারিয়েট অব ন্যাশনাল ইউনিয়নস অব স্টুডেন্টস (সিওএসইসি, ডেনমার্ক) ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট আইডেন্টিটি কার্ড (আইএসআইসি) চালু করেছিল মূলত ভিন্ন দেশ ও সংস্কৃতিকে জানার সুযোগ করে দেওয়ার উদ্দেশ্যে; বিমানভাড়ায় বিশেষ ছাড়সহ ছাত্রের আন্তর্জাতিক পরিচয় প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে। ইউনেস্কো সাপোর্ট পাওয়ার পর বিশ্বের দেশে দেশে এটি দ্রুত সমাদর পেয়ে আসছে। বিগত ৬ দশকের পথচলায় আইএসআইসি বিস্তৃতি পেয়েছে ১৩০টি দেশে এবং প্রতিবছর এসব দেশের শিক্ষার্থীদের বরাবরে ইস্যু করা হচ্ছে ৫ মিলিয়ন কার্ড; যারা পাচ্ছেন বিশ্বের ৪২ হাজার পণ্য ও সেবায় বিশেষ ছাড়।

বাংলাদেশে আইএসআইসি কার্ডের ইস্যুকারী প্রধান পরিবেশক এসএসবিসিএল গ্রুপ। আগামী ২৭ ফেব্রুয়ারি আনুষ্ঠানিকভাবে আইএসআইসি কার্ডের উদ্বোধন ঘোষণা করা হবে। এতে উপস্থিত থাকবেন কোঅর্ডিনেটিং সেক্রেটারিয়েট অব ন্যাশনাল ইউনিয়নস অব স্টুডেন্টসের প্রতিনিধিদল, বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত, আইএসআইসি কার্ডের স্থানীয় পার্টনার কনসার্নস, শিক্ষাবিদ ও বিশিষ্টজনেরা। এসব বিষয়ে বিস্তারিত জানতে যোগাযোগ :৭১২২৪৪৪। আইএসআইসি কার্ডের উদ্বোধনী দিনটিকে ভিন্ন মাত্রায় স্মরণীয় করে রাখতে এসএসবিসিএল গ্রুপ প্রিয় মাতৃভূমিকে বিশদভাবে জানা ও বোঝার উদ্দেশ্যে সেদিন 'ডিসকভারি বাংলাদেশ' নামক গ্রন্থেরও মোড়ক উন্মোচন করবে। উন্নত বিশ্ব থেকে উচ্চশিক্ষা নিয়ে দেশে ফিরে স্বদেশের সম্পদ আর সম্ভাবনাগুলোকে কাজে লাগাতে পারে আমাদের ছেলেমেয়েরা। এডুকেশন উইদআউট বর্ডার—এই স্লোগানে উচ্চকিত শিক্ষা খাতের সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান এসএসবিসিএল ইন্টারন্যাশনাল এডুকেশন বিদেশে যেতে আগ্রহী শিক্ষার্থীদের পরামর্শক ও নির্ভরযোগ্য পথ প্রদর্শক হিসেবে কাজ করছে ১৯৯০ সাল থেকে। শিক্ষাখাতে উত্কৃষ্ট সেবার স্বীকৃতি হিসেবে এসএসবিসিএল গ্রুপ অর্জন করেছে দ্য ইন্টারন্যাশনাল আর্চ অব ইউরোপ অ্যাওয়ার্ড ২০১২, ওয়ার্ল্ড এডুকেশন কংগ্রেস গ্লোবাল অ্যাওয়ার্ড ২০১২, এডুকেশনাল এন্টারপ্রেনার অ্যাওয়ার্ড ২০১৩'সহ বিভিন্ন পুরস্কার। 

বিদেশে উচ্চশিক্ষা লাভের অফুরান সম্ভাবনাকে এদেশের শিক্ষার্থীদের অধিকারে এবং আয়ত্তে এনে দেওয়ার কাজটি বিশ্বস্ততা ও দক্ষতার সঙ্গে করে যাচ্ছে বলে জানালেন এসএসবিসিএল গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক সুমন তালুকদার। তিনি জানান, 'এডুকেশন উইথআউট বর্ডার' এই স্লোগান নিয়ে ১৯৯০ থেকে পথচলা শুরু হয়েছে তাদের। সম্প্রতি তারা বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের জন্য 'ইন্টারন্যাশনাল স্টুডেন্ট আইডেনটিটি কার্ড' ফ্যাসিলিটি প্যাকেজ প্রোগ্রাম চূড়ান্ত করেছে।